জুলাই ২৭, ২০২১ ২ : ১০ পূর্বাহ্ণ
Breaking News
Home / Tech / জোর পূর্বক সংখ্যা লঘুর জমি দখলের চেষ্টা, ফসল কেটে সাবাড়

জোর পূর্বক সংখ্যা লঘুর জমি দখলের চেষ্টা, ফসল কেটে সাবাড়

মহেশপুর প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের মহেশপুর পৌর এলাকায় এক সংখ্যালঘুর জমি জোর পূর্বক দখলের চেষ্টা চালাচ্চে এক ভূমি দস্যু। জানাগেছে, মহেশপুর পৌর এলাকার পাতিবিলা গ্রামে ভূয়া দলিলের মাধ্যমে জোরপূর্বক দখলের চেষ্টা চালাচ্ছে আমির হোসেন নামে এক ভূমি দস্যূ। ক্ষমতাশীন ব্যক্তিদের সাথে নিয়ে ভুয়া দলিল ,নাম পত্তন,নাম খারিজ তৈরি করে মহেশপুর পৈার এলাকার ৭নং ওর্য়াডের মহেশপুর মৈাজার ১২৮৪,১২৮৫ ও ১২৮৮দাগে সংখ্যালঘু অসোক গাও’র পৈত্রিক ৪৪ শতক জমি নিজের বলে দাবি করছেন। এবং ২৩-২-১৯৭১ সালে রেজ্রিটিকৃত দলিলেন ফটো কপি দেখাচ্ছেন । দীর্ঘদিন ধরে ঝিনাইদহের মহেশপুরে পৈার এলাকার পাতিবিলা গ্রামের মৃত ইউনুছ আলীর পুত্র ভূমি দস্যু আমীর গং তার এ তান্ডব চালিয়ে যাচ্ছেন। এবিষয়ে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর কার্যলয় থেকে উভয় পক্ষ কাগজ পত্র সহ আগামি ৩১মে তার কার্যলয়ে হাজির হওয়ার জন্য নোটিশ প্রদান করেন। নোটিশ পাওয়ার পর উক্ত ভূমি দস্যু আমির আরো বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। সে উক্ত জমিতে থাকা ফসল কেটে নষ্ট করছে। জমির মালিক সংঙ্খালঘু অসোক কুমার বলেন, পৈত্রিক সূত্রে এই জমির মালিক আমি । যা ভোগ দখলে রেখেছি। কয়েক মাস আগে এই জমি পাতিবিলা গ্রামের জিন্নাত আলীর কাছে বিক্রির জন্য বায়না পত্র করি। কিন্তু এতো বছর পর হঠাৎ ভূমি দস্যু আমীর গং জমি নিজের বলে দাবি করে জোর পূর্বক দখলে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে মহেশপুর পৌর সভায় আমীরের বিরুদ্ধে জোর পূর্বক জমি দখলের অভিযোগ দায়ের করি। তিনি আরও বলেন ভুয়া কাগজ পত্র তৈরি করে আমার জমি দখল নেয় ভূমি দস্যু আমীর গং । তিনি আরো বলেন এবিষয়ে আমি ঝিনাইদহ আদালতে মামলা করতে যাচ্ছি। এলাকালাবাসী আমিনুর ও কালা মিয়া জানান উক্ত ভূমি দস্যু আমির হোসেন ইতোপূর্বে কয়েক বার জাল দলিল তৈরি করে অন্যের জমি দখল করার অভিযোগ রয়েছে এবং জালদলিল মামলায় ৪৫দিন জেলও খেটেছেন। আমীর হোসেনের মা সামুন বেগম বলেন আমার স্বামী ১৯৭১ সালে অসোক গাও এর পিতা সুবোধ চন্দ্রের কাছ থেকে ৪৪শতক জমি কিনে আমীরকে দিয়েছে এটা মিথ্যা কথা । ১৯৭১ সালে আমীরের বয়স কতো ছিলো জানতে চাইলে তিনি বলেন আমার সঠিক মনে নাই । তবে মনির হোসেনের বয়স যখন আড়াই বছর তখন আমীরের জন্ম হয়। ভূমি দস্যু আমীর হোসেন বলেন, আমি ছোট থাকতে আমার পিতা মৃত-ইউনুছ আলী মহেশপুর মৌজার-১২৮৪,১২৮৫ও ১২৮৮দাগের ৪৪ শতক জমি অসোক কুমার এর পিতা সুবোধ চন্দ্র বন্রো পাধ্যায়ের কাজ থেকে কিনে দিয়েছে । এবিষয়ে মহেশপুর পৌর সভায় অসোক কমুর বিচার প্রার্থনা করলে, পৌর সভা উভয় পক্ষকে উপস্থি থাকার জন্য নোটিশ প্রদান করে। পৌরসভার পক্ষ থেকে বিষয়টি বিমাংশার জন্য জমির কাগজ পত্র দাখিল করতে বলে। বিবাদী কাগজ পত্র দাখিলে ব্যর্থ হইলে মহেশপুরে পৌর সভা বাদীপক্ষকে উচ্চ আদালতে আশ্রয় নিতে বলা হয়। পৌর ভূমি অফিসার নজরুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন আমীর সকল কাগজ পত্র জাল ভাবে তৈরি করেছে যা ভিক্তি হীন। আগামি ৩১মে উপভয় পক্ষকে কাগজ পত্র সহ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর কার্যলয়ে উপস্থিত হওয়ার জন্য নোটিশ প্রদান করা হয়েছে। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশাফুর রহমান বলেন, ভূয়া কাগজ পত্র তৈরি করে অন্যের জমি জোর পূর্বক দখল কারীর কাগজ পত্র জাল প্রমানিত হলে তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এলাকাবাসী উক্ত আমির হোসেনের শান্তির দাবি জানিয়েছেন।

Check Also

কোটচাঁদপুরে হাত ধোয়া দিবস ২০১৭ অনুষ্ঠিত

কোটচাঁদপুর(ঝিনাইদহ)থেকে সুমনঃ আমার হাতেই আমার সু স্বাস্থ্য ২৬ অক্টোবর বিশ্ব হাত ধোয়া দিবস ২০১৭ উপলক্ষ্যে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *